ফেসবুক পেজের মাধ্যমে আয় করুন । ফেসবুক মনিটাইজেশন এখন বাংলাদেশেও


সারাদিন ফেসবুক কতোই না সময় নষ্ট করি। কেমন হয় যদি ফেসবুকে সমসময় নষ্ট করে টাকা আয় হয়? নিশ্চই ভালো। কিন্তু এর জন্য আপনাকে একটু কষ্ট করতে হবে।

ইউটিউবে যেমন ভিডিও দেখার সময় ভিডিওর নিচে বা ভিডিও থামিয়ে ইউটুব বিজ্ঞাপন দেখায়। তেমনি ইউটিউবের সাথে ফেসবুক পাল্লা দিতে Facebook Watch ফীচার চালু করেছে। এর ফলে যারা ভিডিও ক্রিয়েটর তারা তাদের ভিডিও থেকে টাকা আয় করতে পারবে। ভিডিও থামিয়ে এ বিজ্ঞাপন দেখানোর প্রক্রিয়াকে "এড ব্রেকস" বলা হয়। যেটা ফেসবুক ভিউয়েরদের অটোমেটিক দেখিয়ে থাকে।
২০১৭ সাল থেকে এড ব্রেকস শুধু ইউএস এ চালু ছিল। সম্প্রতি তা বাংলাদেশেও চালু হয়েছে।

ফেসবুক মনিটাইজেশন - ফেসবুক পেজের মাধ্যমে আয় করুন

ফেসবুক পেজ থেকে আয় করতে যা যা করতে হবে:

১) প্রথমে আপনাকে একটি ফেইসবুক পেজ বানাতে হবে যদি না থাকে। সেটা আপনি মোবাইল বা কম্পিউটার দিয়ে করতে পারেন। মোবাইল দিয়ে করলে ফেইসবুক অ্যাপের মাধ্যমে করাই উত্তম হবে।

২) পেজ Create করার সময় ক্যাটাগরি Video Creator দিন। এটা পরেও দেয়া যায় বা পরিবর্তন করা যায়। আগে থেকেই পেজ থেকে থাকলে সেট ভিডিও ক্রিয়েটর করে নিন। ক্যাটাগরি Video Creator করা বাধ্যতা মূলক নয়। 

৩) পেজ ক্রিয়েট করার পর পেজের username সেট করুন এবং প্রয়োজনীয় সকল কিছু পূরণ করুন। যেমন, About, Button, Location ইত্যাদি।

৪) এরপর ভিডিও, পোস্ট, ছবি দিয়ে আপনার পেজকে জনপ্রিয় করতে থাকুন এবং লাইক বাড়াতে থাকুন।

৫) গুগল প্লে স্টোর বা অ্যাপ ষ্টোর থেকে Facebook Creator অ্যাপ ডাউনলোড করে আপনার পরিসংখ্যান দেখতে পারেন। আপনার পেজ যখন "এড ব্রেকস" বা মনিটাইজেশন এর জন্য যোগ্যতা অর্জন করবে তখন তা সেখানে দেখতে পারবেন। এবং সেটা চালু করার অপশন পাবেন।

৬) মনিটাইজেশন চালু হলে আপনার ভিডিও থেকে আয়ের বড় একটা অংশ আপনাকে দেবে।

দ্রষ্টব্যঃ ফেসবুক মনিটাইজেশন পাওয়ার যোগ্যতার যে মাপ-কাঠি (Watch Time. Page Like), সেটা যেকোনো সময় পরিবর্তন হতে পারেন। তাই আমরা সেটা এখানে উল্লেখ করলাম না।  আপনি Facebook Creator অ্যাপের মাধ্যমে দেখে নেবেন। আর, ভিডিও অবশ্যই আপনার নিজের হতে হবে। অর্থাৎ, কারো ভিডিও কপি করে দেয়া যাবে না। 

আপনি সহজেই মোবাইল দিয়ে Vlogging ভিডিও বানিয়ে তা আপলোড করতে পারেন। এছাড়া মোবাইল বা ক্যামেরা দিয়ে যেকোনো ভিডিও বানিয়ে তা দিতে পারেন। অবশ্যই অশালীন কনটেন্ট দেয়া যাবে না।

এই পোস্টটি শেয়ার করে আপনার টাইমলাইনে রাখুন এবং করে সবাইকে দেখার সুযোগ করে দিন। এবং প্রতিদিন ট্রিকিটকে ভিজিট করে নতুন নতুন বিষয়ের সাথে আপডেট থাকুন। ধন্যবাদ।


শেয়ার করুন
পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট